• শনিবার   ১৫ মে ২০২১ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১ ১৪২৮

  • || ০৪ শাওয়াল ১৪৪২

জাগ্রত জয়পুরহাট

ইফতারে রাখুন ডিমের মজাদার বুন্দিয়া

জাগ্রত জয়পুরহাট

প্রকাশিত: ১ মে ২০২১  

ইফতারে ছোট ছোট বুন্দিয়ার প্রতি আকর্ষণ থাকে ছোট বড় সবারই। বুন্দিয়া বেশিরভাগ সময়ই দোকান থেকেই কিনে আনা হয় নিশ্চয়ই! তবে বাইরের বুন্দিয়া অস্বাস্থ্যকর হতে পারে।

তাই ঘরেই তৈরি করে নিতে পারেন। ডিম দিয়েও কিন্তু তৈরি করা যায় সুস্বাদু বুন্দিয়া। এটি খেতেও যেমন মজার আবার স্বাস্থ্যকরও বটে।

ঘরে থাকা কয়েকটি উপকরণ দিয়েই ঝটপট তৈরি করে নেওয়া যায় ডিমের বুন্দিয়ে। তাহলে আর দেরি কেন, চলুন জেনে নেওয়া যাক রেসিপি-

উপকরণ

১. ডিম ৮টি
২. পাউডার দুধ ৭৫ গ্রাম
৩. তেল/ঘি ৪ টেবিল চামচ
৫. চিনি স্বাদমতো
৬. দারুচিনি ছোট ৪ টুকরো
৭. এলাচি আস্ত ৪টি
৮. লবঙ্গ আস্ত ৪টি
৯. তেজপাতা ২টি
১০. ভ্যানিলা অ্যাসেন্স ১ চা চামচ
১১. গোলাপজল ১ চা চামচ
১২. অরেঞ্জ ফুড কালার সামান্র
১৩. কিসমিস ১০-১২টি
১৪. পানি পরিমাণমতো ২০০ মিলিলিটার

পদ্ধতি

প্রথমে ২০০ মিলিলিটার পানিতে ডিম, গুঁড়ো দুধ, চিনি ও ভ্যানিলা অ্যাসেন্স একসঙ্গে মিমিয়ে নিন ভালো করে। এবার চুলায় একটি প্যান গরম করে তেল বা ঘি গরম করে নিন।

তেল গরম হলে প্যানে তেজপাতা, এলাচি, লবঙ্গ ও দারুচিনি ভেজে নিন। এর ডিমের মিশ্রণটি প্যানে ঢেলে দিন। কিছুক্ষণ নেড়ে তারপর ফুড কালার মিশিয়ে দিন।

নিচে যেন লেগে না যায়, এজন্য ক্রমাগত নাড়তে হবে মিশ্রণটি। যখন দেখবেন মিশ্রণটি দানা বাঁধতে শুরু করেছে; তখন চুলার আঁচ কমিয়ে দিন।

যখন মিশ্রণ একদম শুকিয়ে আসবে এবং দানা দানা বুন্দিয়ার মতো হয়ে যাবে; তখন গেলাপজল ও কিসমিস ছড়িয়ে দিন এতে। এভাবে কয়েক মিনিট নাড়ার পর তৈরি হয়ে যাবে মজাদা ডিমের বুন্দিয়া।

পরিবেশন করার আগে গরম মশলাগুলো তুলে ফেলবেন। একটি এয়ারটাইট বক্সে ফ্রিজে বেশ কয়েকদিন সংরক্ষণ করে প্রতিদিন ইফতারে খেতে পারবেন ডিমের বুন্দিয়া।

জাগ্রত জয়পুরহাট
জাগ্রত জয়পুরহাট