• বুধবার   ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ ||

  • আশ্বিন ১৩ ১৪২৯

  • || ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

জাগ্রত জয়পুরহাট

পাকিস্তানে বন্যায় মৃত্যু প্রায় দেড় হাজার, খাবারের জন্য হাহাকার

জাগ্রত জয়পুরহাট

প্রকাশিত: ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২  

পাকিস্তানের নজিরবিহীন বন্যায় মৃত্যু সংখ্যা প্রায় দেড় হাজারে পৌঁছেছে। বন্যায় দেশটির বেশিরভাগ অংশ পানির নিচে রয়েছে। বৃহস্পতিবারের তথ্যে দেখা গেছে, কর্তৃপক্ষ দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত লক্ষাধিক মানুষের জন্য ত্রাণ তৎপরতা বাড়ানোর চেষ্টা করছে। বন্যার্তদের বেশিরভাগই খাবারের জন্য হাহাকার করছেন।

রেকর্ড বৃষ্টি এবং হিমবাহ গলে আসা বন্যায় ২২ কোটি জনংখ্যার পাকিস্তানে ৩ কোটি ৩০ লাখের বেশি মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আনুমানিক ৩০ বিলিয়ন ডলারের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। যার মধ্যে রয়েছে, ঘরবাড়ি, পরিবহন, ফসল এবং গবাদি পশুর ক্ষতি।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, এখন পর্যন্ত বন্যায় মৃত্যুর সংখ্যা নিশ্চিত করা হয়েছে ১৪৮৬ জনের। তাদের মধ্যে প্রায় ৫৩০ জন শিশু।  জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ বলেছে, এটি ৯ সেপ্টেম্বরের পর থেকে প্রথম দেশব্যাপী মোট সংখ্যা প্রকাশ করেছে। এই সময়ের মধ্য নতুন করে মৃত্যু হয়েছে ৯০ জনের।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে কর্তৃপক্ষ বন্যার পানিকে পাওয়ার স্টেশন এবং বাড়ির মতো মূল কাঠামোর বাইরে রাখার জন্য চেষ্টা করছে। এতে 
কৃষকরা গবাদি পশু বাঁচানোর চেষ্টা করছে এবং পশুখাদ্য ফুরিয়ে যাওয়ার সাথে সাথে নতুন হুমকির মুখোমুখি হয়েছে।

পাকিস্তানে জুলাই এবং আগস্ট মাসে ৩৯১ মিমি (১৫.৪ ইঞ্চি) বৃষ্টি হয়েছে, যা গত ৩০ বছরের গড় থেকে প্রায় ১৯০% বেশি। সিন্ধু প্রদেশের দক্ষিণাঞ্চলের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্থ অঞ্চলগুলোর মধ্যে একটি। সেখানে এই হাজার ৪৬৬% বেশি।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার সংযুক্ত আরব আমিরাত ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে সহায়তার ফ্লাইট দেশে এসেছে। পুনর্গঠনের প্রয়োজনীয়তা মূল্যায়ন করছে জাতিসংঘ।

সূত্র: রয়টার্স

জাগ্রত জয়পুরহাট
জাগ্রত জয়পুরহাট