মঙ্গলবার   ২৮ মে ২০২৪ || ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

জাগ্রত জয়পুরহাট

প্রকাশিত: ১৪:৪৭, ১৯ এপ্রিল ২০২৪

কানাডায় উৎসবমুখর-বর্ণিল আয়োজনে পহেলা বৈশাখ উদযাপন

কানাডায় উৎসবমুখর-বর্ণিল আয়োজনে পহেলা বৈশাখ উদযাপন
সংগৃহীত

কানাডার ভ্যাঙ্কুভারের গ্রেটার ভ্যাঙ্কুভার বাংলাদেশ কালচারাল অ্যাসোসিয়েশনের আয়োজনে পহেলা বৈশাখ উদযাপন করা হয়েছে। সোমবার (১৫ এপ্রিল) শিশু-কিশোরসহ সর্বস্তরের মানুষ দেশীয় বাহারি পোশাকে মেলায় উপস্থিত হন। বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত এবং মঙ্গল শোভাযাত্রার মাধ্যমে পহেলা বৈশাখের অনুষ্ঠান শুরু হয়। মেলাতে ছিল নানারকম দেশীয় খাবার, পিঠা, শাড়ি-কাপড় ও গহনার দোকান।

দিনব্যাপী জমকালো মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ছিল স্থানীয় শিল্পীদের সুরেলা কন্ঠে গান। অতিথি শিল্পী ঋতুপর্ণা ব্যানার্জি এবং তার মধুর কন্ঠে মাতিয়ে রাখেন সবাইকে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে বাংলাদেশের সাংস্কৃতি ও খাবার উপভোগ করেন বিটিস কলম্বিয়া (কনসারভেটিভ) পার্টির লিডার জন রাষ্ট্রেড ও তার সহধর্মিণী। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সভাপতি মো. ইমন।

দিনব্যাপী প্রাণের মেলায় পদ্মা-যমুনা মিলনের মতই প্রবাসী বাঙালিদের পাশাপাশি বিদেশিরাও এ অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে উপোভোগ করেন সকাল থেকে বিকেল অবধি। আনন্দের আবহে দুপুর থেকে বিকেল অবধি বাঙালি চিরাচরিত আড্ডা আর লোকে লোকারণ্যে মুখরিত গানের সুরে, কবিতার ছন্দে, নাচের মুদ্রায় আর উপস্থাপনায় কোথাও যেন ঘটেনি ছন্দপতন।

সংগঠনের সভাপতি মো. ইমন সমকালকে বলেন, প্রবাসে থাকলেও আমাদের মন পড়ে থাকে বাংলাদেশে। সেই আদলেই আমরা চেষ্টা করেছি আমাদের সংস্কৃতিকে ধরে রাখতে। আমরা চাই, আমাদের নতুন প্রজন্ম আমাদের সংস্কৃতির চর্চা করুক। বিশ্বের দরবারে আমাদের লাল সবুজের পতাকাকে তুলে ধরুক।

দূরপ্রবাসে বাঙালি সংস্কৃতির এ উৎসব যেন এক মহামিলন। কর্মজীবনের পাশাপাশি সম্প্রীতির বন্ধনে এমনি করে বারবার মহামিলনে জেগে উঠুক নতুন প্রজন্ম– এমনটাই প্রত্যাশা কানাডায় বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশিদের।

সূত্র: সমকাল

সর্বশেষ

জনপ্রিয়